হতেও পারে ইলিশের ব্যতিক্রমী আয়োজনে বহুপরিচিতিসহ অর্থনৈতিক উন্নতি

চাঁদপুর : ইলিশের বাড়ী চাঁদপুর। ইলিশ চাঁদপুর একটি ব্র্যান্ডিং পন্য ইত্যাদি নানা রকমের উপাধি নিয়ে চাঁদপুর বিশ্বের দুয়ারে খ্যাত রয়েছে। সরকারের নানা কর্মসূচির কারনে চাঁদপুরসহ সারাদেশব্যপী ইলিশের উৎপাদন দিন দিন বৃদ্ধিও পাচ্ছে। এছাড়াও চাঁদপুরে সরকারি বা বেসরকারিভাবে বছরের নানা সময়ে বিভিন্ন সচেতনামূলক দিক নির্দেশনা সহ বিভিন্ন রকমের সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হচ্ছে এবং চাঁদপুরবাসী সেইসব অনুষ্ঠানগুলো উৎসাহ উদ্দিপনার সাথে উপভোগ করছেন। তবে ওইসব সময়গুলো ব্যতীত বছরের অন্য সময়গুলিতে যেনো এই ব্র্যান্ডিং পন্য বা ইলিশের কথা ভুলেই যায়। ভুলেই যায় ইলিশের বাড়ী চাঁদপুর নামে খ্যাতনামা পন্যের নামটিকেও।

এই চাঁদপুরের ব্র্যান্ডিং পন্য ইলিশ নিয়ে নাগরিক বার্তা.কম শহরের বিশিষ্ট কিছু সচেতন নাগরিকের সাথে কথা বললে তারা জানান সরকারি বা বেসরকারিভাবে নানা সময়ের বিশেষ কর্মসূচির পাশাপাশি পহেলা বৈশাখসহ নদীর পাশে মানে বড় ষ্টেশন মোলহেডসহ বিভিন্ন জায়গাতে বিভিন্ন রকমের সচেতনামূলক অনুষ্ঠান ও ইলিশের তৈরী রান্না নিয়ে খাবারের আয়োজন করা হয় আর সেখানে ধনী-গরিবসহ সর্বস্তরের সাধারন জনগন বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনা নিয়ে অংশগ্রহন করে থাকেন ঠিক একইরকমের ব্যতিক্রমী আয়োজন সারাবছর করা যেতে পারে। যেখানে আকর্ষনীয় খাবারের পাশাপাশি ইলিশের জানা অজানা বিভিন্ন তথ্য, রক্ষা ও উৎপাদন বৃদ্ধির নানা সচেতনামূলক দিক নির্দেশনা থাকতে হবে।

তারা আরো জানান একসময় চাঁদপুরের ইলিশ খাওয়ার জন্য সরকারি বা বেসরকারিভাবে দেশ-বিদেশের নানা পর্যটকরা আসতেন যা এখন দেখা যায় না এইরকম ব্যতিক্রমী কোনো আয়োজন হলে সেই পর্যটকদের আবার আসার কারন হবে যার ফলে সারাবিশ্বে চাঁদপুরের ব্যাপক পরিচিতির, ইলিশ সম্পর্কে সাধারনবাসীর মধ্যে সচেতনতা বাড়ার সাথে সাথে অর্থনৈতিক দিক দিয়ে উন্নতি লাভ করবে।

তা.আ/